৪ শিশুর খুনি বাচ্চু ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত

Gunfight_The Dhaka Report

নিউজ ডেস্ক, দ্য ঢাকা রিপোর্ট ডটকম:

র‌্যাবের সঙ্গে কথিত বন্দুকযুদ্ধে হবিগঞ্জে চার শিশু হত্যা মামলার প্রধান আসামি সিএনজি অটোরিকশা চালক বাচ্চু মিয়া নিহত হয়েছেন। ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৬ বৃহস্পতিবার ভোরে হবিগঞ্জের চুনারুঘাটের চাকলাপুঞ্জি এলাকায় এই বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে।

র‌্যাব-৯ এর শ্রীমঙ্গল ক্যাম্পের কোম্পানি কমান্ডার কাজী মনিরুজ্জামান এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন। এছাড়া চুনারুঘাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নির্মলেন্দু চক্রবর্তীও ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন।

র‌্যাব কর্মকর্তা কাজী মনিরুজ্জামান জানান, বুধবার রাতে র‌্যাব হবিগঞ্জের বিশ্বনাথ উপজেলা থেকে চার শিশু হত্যাকাণ্ডে জড়িত সন্দেহে শাহেদ নামে এক যুবককে আটক করে। তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করে র‌্যাব জানতে পারে, বৃহস্পতিবার এই মামলার প্রধান আসামি পলাতক বাচ্চু মিয়া চুনারুঘাট সীমান্ত দিয়ে ভারতে পালিয়ে যাবেন। তাই বৃহস্পতিবার ভোরে চুনারুঘাটে র‌্যাব অভিযান চালায়। চাকলাপুঞ্জি এলাকায় গভীর রাতে কয়েকজনকে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখে র‌্যাব তাদের চ্যালেঞ্জ করে। এ সময় তারা র‌্যাবকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। র‌্যাব সদস্যরাও পাল্টা গুলি ছুঁড়লে বাচ্চু মিয়া নিহত হন। এ ঘটনায় র‌্যাবের দুই সদস্যও আহত হয়েছেন। এছাড়া ঘটনাস্থল থেকে একটি নাইন এমএম পিস্তল ও দুই রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়েছে।

এর আগে হবিগঞ্জের বাহুবল উপজেলায় পাঁচ দিন নিখোঁজ থাকার পর গত ১৭ ফেব্রুয়ারি সকালে চার শিশুর মাটিচাপা দেওয়া লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। নিহত ওই চার শিশু হলো সুন্দ্রাটিকি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রথম শ্রেণির ছাত্র মনির (৭), দ্বিতীয় শ্রেণির শুভ (৮), চতুর্থ শ্রেণির তাজেল (১০) ও সুন্দ্রাটিকি মাদ্রাসার ছাত্র ইসমাইল (১০)। গ্রাম পঞ্চায়েত কেন্দ্রিক বিরোধের জেরে এই হত্যাকাণ্ড ঘটে বলে জানতে পেরেছে পুলিশ। এ ঘটনায় পুলিশ এখন পর্যন্ত ৫ জনকে গ্রেফতার করেছে। তবে হত্যাকাণ্ডের মূল হোতা বাচ্চু মিয়া পলাতক ছিলেন। কার্টিসি: বাংলা ট্রিবিউন।

Share.

Leave A Reply