আরশের ছায়ায় ধন্য যারা!

ইসলাম ডেস্ক, দ্য ঢাকা রিপোর্ট ডটকম:

কিয়ামতের দিনের ভয়াবহ সময়ে যখন মানুষ দিগ্বিদিক ছোটাছুটি করবে একটু ছায়ার সন্ধানে। যখন আল্লাহ তাআলার ছায়া ব্যতীত আর কোনো ছায়া থাকবে না। তখন মহান আল্লাহর কৃপা লাভে ধন্য হবে সাত শ্রেণীর মানুষ। যারা আল্লাহর ছায়াতলে আশ্রয় পাবেন। দ্য ঢাকা রিপোর্ট ডটকম-এর পাঠকদের জন্য তাঁদের পরিচয় তুলে ধরা হলো:

আরবি হাদিস

وَعَن أَبي هُرَيرَةَ رضي الله عنه، قَالَ: قَالَ رَسُولُ اللهِ ﷺ:« سَبْعَةٌ يُظِلُّهُمُ اللهُ في ظِلِّهِ يَوْمَ لاَ ظِلَّ إلاَّ ظِلُّهُ: إمَامٌ عَادِلٌ، وَشَابٌّ نَشَأ في عِبَادَةِ الله تَعَالَى، وَرَجُلٌ قَلْبُهُ مُعَلَّقٌ بِالمَسَاجِدِ، وَرَجُلاَنِ تَحَابّا في اللهِ اجْتَمَعَا عَلَيهِ وتَفَرَّقَا عَلَيهِ، وَرَجُلٌ دَعَتْهُ امْرَأةٌ ذَاتُ مَنصَبٍ وَجَمَالٍ، فَقَالَ: إنِّي أخَافُ الله، وَرَجُلٌ تَصَدَّقَ بِصَدَقَةٍ، فَأخْفَاهَا حَتَّى لاَ تَعْلَمَ شِمَالُهُ مَا تُنْفِقُ يَمِينُهُ، وَرَجُلٌ ذَكَرَ الله خَالِياً فَفَاضَتْ عَيْنَاهُ ». مُتَّفَقٌ عَلَيهِ .

বাংলা অনুবাদ

বিশিষ্ট সাহাবি হজরত আবু হুরায়রা রাদিয়াল্লাহু আনহু থেকে বর্ণিত, তিনি রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম থেকে বর্ণনা করেন, রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বলেছেন, কিয়ামতের দিন আল্লাহ্ সুবহানাহু ওয়া তাআলা সাত শ্রেণীর ব্যক্তিকে তাঁর আরশের ছায়া দ্বারা আচ্ছাদিত করবেন, যেদিন তাঁর ছায়া ব্যতীত আর কোনো ছায়া থাকবে না। তারা হলেন-

১. ইমামুন আদেলুন- ন্যায়পরায়ণ শাসক।

২. ওই যুবক যার যৌবন আল্লাহ্ তাআলার ইবাদাতে অতিবাহিত হয়।

৩. ওই ব্যক্তি যার অন্তর মসজিদের সাথে ঝুলন্ত থাকে।

৪. এমন ব্যক্তি যে নির্জনে আল্লাহ্ তায়ালাকে স্মরণ করে এবং তার নয়নযুগল অশ্রুসিক্ত হয়।

৫. এমন দুই ব্যক্তি যারা পরস্পরকে শুধুমাত্র আল্লাহর সন্তুষ্টি লাভের আশায় ভালোবাসেন।

৬. এমন ব্যক্তি যাকে কোন প্রভাবশালী সুন্দরী রমণী (ব্যবিচারের উদ্দেশ্যে) আহবান করে, আর সে উত্তরে বলে আমি আল্লাহকে ভয় করি।

৭. ঐ ব্যক্তি যে নিজের দানকে এমনভাবে গোপন করে যে তার বাঁ হাত জানতে পারে না ডান হাত দ্বারা কী দান করল।

(বুখারি ও মুসলিম, মুসনাদে আহমদ, মুয়াত্তা মালিক, তিরমিজি, নাসাঈ)।

পরিশেষে…

কিয়ামত দিবসের ভয়াবহতা থেকে পরিত্রাণ লাভ এবং সুখী সমৃদ্ধ জাতি গঠনে উক্ত হাদিসের আমল প্রতিটি মুসলিমের জীবনে বাস্তবায়ন করা সময় ও ঈমানের দাবি। এ বৈশিষ্ট্যসমূহ দ্বারা মু’মিনদের চরিত্র গঠনে আল্লাহ্ তায়ালার অনুকম্পা লাভের প্রত্যাশায় মুনাজাত করছি। আল্লাহ তাআলা সবাইকে হাদিসের বাস্তব আমল করার তাওফিক দান করুন। আমিন। কার্টিসি: জাগো নিউজ।

Share.

Leave A Reply