৩০ অগ্রহায়ণ, ১৪২৫|৬ রবিউস-সানি, ১৪৪০|১৪ ডিসেম্বর, ২০১৮|শুক্রবার, সন্ধ্যা ৬:০৫

ব্ল্যাকহেডসকে না বলুন!

লাইফস্টাইল ডেস্ক, দ্য ঢাকা রিপোর্ট ডটকম: সুন্দর নাকের ডগাখানি দেখতে বেমানান লাগে, যখন তাতে কালো কালো দাগ পড়ে। নাকের ডগায় এ কালো দাগগুলোকে বলে ব্ল্যাকহেডস। গরম আর ধুলাবালুর প্রকোপে এর থেকে রেহাই পাওয়া কঠিনই বটে। তবে নিয়মিত পরিচর্যায় ব্ল্যাকহেডস থেকে মুক্তি পাওয়া সম্ভব বলে মনে করেন রূপ বিশেষজ্ঞ এবং এভারগ্রিন অ্যাডামস এন্ড ইভসের কর্ণধার নাহিদ আফরোজ তানি।

নাহিদ আফরোজ তানি দ্য ঢাকা রিপোর্ট’কে বলেন, গরমে ঘামে আমাদের ত্বকের কোষগুলো স্বাভাবিকের তুলনায় বেশি প্রসারিত হয়ে যায়। এর ভেতর ধুলাবালি ঢুকে প্রথমে সাদা শাল বা হোয়াইটহেডসে পরিণত হয়। এগুলো পরে ব্ল্যাকহেডসে রূপান্তরিত হয়। যদি শুরু থেকেই সাদা শালগুলোকে দূর করা যায়, তবে ব্ল্যাকহেডস হওয়া থেকে পরিত্রাণ পাওয়া সম্ভব। ঘরে বসেই ব্ল্যাকহেডস দূর করতে কিছু পরামর্শ রইল।

* সুন্দর থাকার অন্যতম শর্ত হলো পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন থাকা। নিয়মিত মুখমণ্ডল পরিচ্ছন্ন রাখলে ব্ল্যাকহেডস হওয়ার আশঙ্কা অনেকটাই কমে যায়।

* মনে রাখতে হবে, কোষের প্রসারণের কারণে তাতে ধুলাবালু জমে ব্ল্যাকহেডসের সূত্রপাত ঘটে। অত্যধিক গরমে এটি হয়ে থাকে। অনেক সময় রূপচর্চার সময় গরম ভাপ নেওয়া হলেও এটি ঘটতে পারে। সে ক্ষেত্রে গরম ভাপ নেওয়ার পর কিংবা প্রখর রোদে ঘেমে ঘরে ফেরার পর অবশ্যই বরফ দিয়ে নাকে ও চোয়ালে কিছু সময় মালিশ করতে হবে। এতে কোষগুলো আবারও সংকুচিত হয়ে স্বাভাবিক অবস্থায় ফিরে যাবে।

* যাঁরা এর মধ্যেই নাকে সাদা শালের উপদ্রব টের পেয়েছেন, তাঁরা যেকোনো লোশন বা ম্যাসাজ ক্রিম ও পেট্রোলিয়াম জেলি একত্রে মিশিয়ে হালকা করে নাকে কিছু সময় মালিশ করুন। নাকের ত্বক নরম হলে গরম পানিতে রুমাল ভিজিয়ে হালকা চাপ দিয়ে সাদা শালগুলো তুলে নিতে পারেন।

* ডিমের সাদা অংশের সঙ্গে কয়েক ফোঁটা লেবুর রস মিশিয়েও নাকে লাগানো যেতে পারে। লাগানোর পর এর ওপর একটা পাতলা কোমল কাপড় আটকে দিতে হবে। শুকিয়ে গেলে টান দিয়ে তুলে ফেলতে হবে। এতে ব্ল্যাকহেডস উঠে যাবে।

* আঙুলের ডগায় মধু নিয়ে নাকে ও চোয়ালে ঘুরিয়ে ঘুরিয়ে কিছু সময় মালিশও করতে পারেন। এরপরকুসুমগরম পানিতে ধুয়ে নিন।

* পাকা টমেটো পুরো মুখে লাগিয়ে নিয়ে ব্ল্যাকহেডসের অংশগুলো ১৫ মিনিট ধরে হালকা মালিশ করুন। তারপর গরম পানিতে ধুয়ে নিন।

* চালের গুঁড়ার সঙ্গে টক দই ও দুই-তিন ফোঁটা মধু মিশিয়ে স্ক্রাবার হিসেবেও ব্যবহার করতে পারেন নাকে-চোয়ালে। এতে মৃদু মালিশে ব্ল্যাকহেডস দূর হয়ে যায়।

* যাঁদের ব্ল্যাকহেডস এর মধ্যেই অনেক বেশি শক্ত হয়ে বসেছে তাঁরা ওপরের যেকোনো একটি উপায় অনুসরণ শেষে ব্ল্যাকহেডস দূর করার ক্লিপের সহায়তা নিতে পারেন। বাজারে একধরনের সরু ক্লিপ পাওয়া যায়, যেটি কেবল ব্ল্যাকহেডস দূর করতেই ব্যবহার করা হয়। এটি দিয়ে হালকা চাপ দিলে বেরিয়ে আসে ভেতরের বাড়তি অংশটি, যেটি আপনার সৌন্দর্যের বাধা সৃষ্টিকারী। এবার বিদায় জানান ব্ল্যাকহেডসকে। আপনার নাকের ডগায় বসে এমন সাহস আর আছে কার?

Share.

Leave A Reply